ঢাকা, শুক্রবার, ২ ডিসেম্বর, ২০২২
আপডেট : ১৯ অক্টোবর, ২০২২ ১৬:৪৩

পুরনো ফোন দ্রত চার্জ করার উপায়

প্রযুক্তি ডেস্ক
পুরনো ফোন দ্রত চার্জ করার উপায়


পুরনো ফোন ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করে না। ফলে ধীর গতিতে চার্জ নেয়। যদিও কয়েকটি সহজ টোটকা জানা থাকলে তুলনামূলক কম সময়ে চার্জ হবে যে কোন ফোন। জেনে নিন এমন কয়েকটি নিয়ম।
ফোন বন্ধ করতে না চাইলে চার্জিংয়ের সময় এয়ারপ্লেন মোড এনেবেল করুন। এর ফলে আপনার ফোন আগের থেকে দ্রুত চার্জ হবে। এয়ারপ্লেন মোড অন থাকলে ফোনে নেটওয়ার্ক মোডেম বন্ধ থাকে। ফলে কম ব্যাটারি প্রয়োজন হয়। তাই চার্জিংয়ের সময় অনেকটা কমে যাবে।
চার্জিংয়ের সময় ফোন ব্যবহার না করা
চার্জ দেয়ার সময় ফোন ব্যবহার করবেন না। খুব গুরুত্বপূর্ণ ফোন অথবা মেসেজ না এলে ফোন ব্যবহার না করাই ভালো। ফোন লক করে চার্জে রেখে দিন। এছাড়াও ব্যাকগ্রাউন্ডে চলা সব অ্যাপ কিল করুন। ফোন ব্যবহার না করলে অনেকটা কমবে চার্জের সময় কমবে অনেকটাই।
ওয়াল সকেট ব্যবহার করুন
ল্যাপটপ অথবা কম্পিউটার থেকে মোবাইল চার্জ করলে অনেক বেশি সময় লাগে। দ্রুত ফোন চার্জ করার জন্য ওয়াল সকেট ব্যবহার করুন। কয়েকটি ফোনে ফাস্ট চার্জার ব্যবহার করলে আরও দ্রুত ফোন চার্জ করা সম্ভব হয়। আপনার ফোনে ফাস্ট চার্জ সাপোর্ট না থাকলেও ওয়াল সকেট ব্যবহারে ল্যাপটপের থেকে দ্রুত চার্জ করতে পারবেন।
কেস খুলে চার্জ করুন
ফোন চার্জ করার সময় কেস খুলে রাখুন। ফোনে কেস পরানো অবস্থায় ফোন চার্জ করলে অতিরিক্ত গরম হয়ে যায়। ফোনের ভিতরে তাপমাত্রা অতিরিক্ত বেড়ে গেলে চার্জিংয়ে বেশি সময় লাগে। তাই দ্রুত ফোন চার্জ করতে অবশ্যই ফোনের কেস খুলে নিন।
পাওয়ার ব্যাংক ব্যবহার করুন
প্রিমিয়াম সেগমেন্টের কিছু পাওয়ার ব্যাংকে ওয়াল সকেটের থেকে বেশি স্পিডে ফোন চার্জ করা সম্ভব। নিয়মিত রাস্তা-ঘাটে ফোন চার্জিংয়ের প্রয়োজন হলে একটি ভালো পাওয়ার ব্যাংক কিনতে পারেন। প্রিমিয়াম কোয়ালিটির পাওয়ার ব্যাংক একদিকে যেমন দ্রুত চার্জ হয়, অন্যদিকে আপনার ফোনকেও দ্রুত চার্জ করতে পারে।
ক্যাবলের দৈর্ঘ্য
ক্যাবলের দৈর্ঘ্যের উপরেও অনেক সময় ফোনের চার্জিং স্পিড নির্ভর করে। কেবেল অতিরিক্ত লম্বা হলে রেসিস্ট্যান্সের কারণে চার্জিং স্পিড কমে যায়। তাই ফাস্ট চার্জিংয়ের জন্য কেবেল দৈর্ঘ্য ছোট থাকাই ভালো।

উপরে