ঢাকা, সোমবার, ১৫ এপ্রিল, ২০২৪
আপডেট : ৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ ১৭:২৯

‘আপনি চশমা পরে যেটা দেখেন, আমি তার চেয়ে ভালো দেখি’

ক্রীড়া ডেস্ক
‘আপনি চশমা পরে যেটা দেখেন, আমি তার চেয়ে ভালো দেখি’


চলমান বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগে (বিপিএল) সাকিব আল হাসানের পারফরমেন্স খুবই হতাশার। বেশ কিছু ম্যাচ তো ব্যাটিংই করেননি। আর যে কয় ম্যাচে করেছেন, সেখানে ব্যাটিং অর্ডার ছিল নিচের দিকে। এখন পর্যন্ত ৫ ম্যাচে ব্যাটিং করে তার রান ৪! মূলত চোখের সমস্যার কারণেই তার এই অবস্থা! বিশ্বকাপের পর থেকেই মূলত সাকিব আল হাসানের চোখের সমস্যার কথা সামনে আসে। এরপর থেকে তিনি যেখানেই গণমাধ্যমের মুখোমুখি হয়েছেন সেখানেই তার চোখ নিয়ে প্রশ্ন করেছেন সাংবাদিকরা। সম্প্রতি চোখের সমস্যা নিয়ে প্রশ্ন শুনে ওই সাংবাদিকের উপর বেশ চটে যান সাকিব আল হাসান।

শনিবার (৩ ফেব্রুয়ারি) রাতে সিলেট স্ট্রাইকার্সের বিপক্ষে ম্যাচ শেষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে বিতর্কিত মন্তব্য করেন রংপুর রাইডার্সের অলরাউন্ডার সাকিব। চোখের সমস্যা নিয়ে প্রশ্ন করতেই এক সংবাদকর্মীকে পাল্টা প্রশ্ন করেন সাকিব, ‘আপনাকে কে বলেছেন চোখের সমস্যা?’ একটু পর সাংবাদিককে খোঁচা দিয়ে সাকিব আরও বলেন, ‘এই যে বারবার চোখ চোখ চোখ করছেন, চোখের কোনও সমস্যা নেই। আপনি চশমা পরে যেটা দেখেন, আমি তার চেয়ে ভালো দেখি।’

বিশ্বকাপের সময় চোখে সমস্যাটা প্রথম ধরা পড়লে চেন্নাইয়েই চক্ষুবিশেষজ্ঞ দেখিয়েছিলেন সাকিব আল হাসান। এরপর ঢাকা ও লন্ডনেও চিকিৎসকের শরণাপন্ন হয়েছেন। আর গত ২১ জানুয়ারি তিনি সিঙ্গাপুরে যান। সমস্যা সম্পর্কে সাকিব যেটা বলেছেন, সব চিকিৎসকের পর্যবেক্ষণও তা–ই বলে। অতিরিক্ত মানসিক চাপে থাকলে তার চোখের রেটিনার নিচে একধরনের তরল পদার্থ জমছে, যেটা ঝাপসা করে দিচ্ছে দৃষ্টি। চিকিৎসাবিজ্ঞানের ভাষায় একে বলে সেন্ট্রাল সেরাস কোরিওরেটিনোপ্যাথি বা সিএসসি।

এদিকেএবারের বিপিএলের তিন ম্যাচে সাকিব আল হাসানের রান- ২, ২, ০। রংপুর রাইডার্সের এ অলরাউন্ডার দলের এক ম্যাচে খেলেননি আর দুই ম্যাচে ব্যাটিংই করেননি। তবে বল হাতে তিনি অবশ্য আগের সাকিবই আচেন, ৫ ইনিংসে নিয়েছেন ৬ উইকেট। রংপুর তাদের সর্বশেষ ম্যাচে সিলেট স্ট্রাইকার্সের বিপক্ষে আজ ৭৭ রানের জয় পেয়েছে। এই জয়ে চার নম্বরে ব্যাট করতে নেমে প্রথম বলেই শূণ্যে রানে আউট হয়ে ফিরেছেন সাকিব। তবে বল হাতে ৪ ওভারে ১৮ রান দিয়ে ২ উইকেট তার।

ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে এসে সাকিব নিজেও বললেন, রংপুর আসলে অর্ধেক সাকিবকে পাচ্ছে, ‘জীবনে এই প্রথমবার শুধু একটা দিক নিয়ে খেলছি। রংপুর রাইডার্সের জন্য খারাপ লাগছে আমার। তারা আমাকে দলে নিয়েছিল। অথচ আমি তাদের জন্য অর্ধেক কাজ করতে পারছি, অর্ধেক পারছি না।’

রংপুরকে একটা ধন্যবাদও দিলেন সাকিব, তারপরও তারা যেভাবে আমাকে সমর্থন করে যাচ্ছে, তাদের ধন্যবাদ অবশ্যই দিতে হয়। এ রকম একটা ফ্র্যাঞ্চাইজিতে খেলতে পেরে আমি খুবই গর্বিত। কারণ, তারা আমাকে যেভাবে দেখাশোনা করছে এই সময়ে, তারা অবস্থাটা বুঝেছে এবং যেভাবে তা সামলাচ্ছে, আসলে তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করা ছাড়া আমার আর কিছু বলার নেই।

উপরে