ঢাকা, রবিবার, ১২ জুলাই, ২০২০
আপডেট : ১৫ জুন, ২০২০ ২৩:৪৮

খুলনায় করোনায় চিকিৎসাধীন নারী রোগীকে যৌন হয়রানী

খুলনায় করোনায় চিকিৎসাধীন নারী রোগীকে যৌন হয়রানী


নিজস্ব প্রতিবেদক, খুলনা
খুলনায় করোনা ডেডিগেটেট হাসপাতালে চিকিৎসাধীন গৃহবধূকে যৌন হয়রানীর অভিযোগ উঠেছে। হাসপাতালে চুক্তিভিত্তিক নিয়োগকৃত (আউট সোর্সিং) নজরুল ইসলাম এ ঘটনা ঘটিয়েছে। সোমবার (১৫ জুন) সন্ধ্যায় বিষয়টি প্রকাশ পেলে হাসপাতালে উত্তেজনার সৃষ্টি হয়। 
জানা যায়, গত ৬ জুন করোনায় আক্রান্ত হয়ে ওই গৃহবধূ করোনা হাসপাতালে ভর্তি হন। ভর্তির পর থেকেই নজরুল ইসলাম তাকে নানাভাবে উত্যক্ত করতে থাকে। রাতের বেলায় নানা অজুহাতে শরীরের বিভিন্ন স্থানে স্পর্শ করার চেষ্টা করে। এছাড়া গভীর রাতে মহিলা ওয়ার্ডে এসে অন্য নারীদের ব্লাড প্রেসার মাপা বা অক্সিজেন দেওয়ার অজুহাতে তাদের স্পর্শকাতর জায়গায় হাত দেয়ার চেষ্টা করতো। 
ভূক্তভোগী গৃহবধূ অভিযোগ করেন, গত শনিবার (১৩ জুন) রাতে নজরুল মহিলা ওয়ার্ডে এসে তাকে ঘুম থেকে জাগিয়ে অপারেশন থিয়েটারে আসতে বলে। না আসলে সমস্যা হবে বলে হুমকি দেয়। বিষয়টি তিনি ওয়ার্ডের অন্য রোগীদের জানিয়ে অপারেশন থিয়েটারে গেলে নজরুল তাকে জড়িয়ে ধরার চেষ্টা করে। এসময় অন্য রোগীরা তাকে ঘেরাও করে বিষয়টি নার্স ও ডাক্তারদের অবহিত করেন। 
খুলনা মেডিকেল কলেজের উপাধ্যক্ষ ডা. মেহেদী নেওয়াজ বলেন, এটি জঘন্যতম অপরাধ। করোনা পরিস্থিতির মধ্যে এ ধরনের অপরাধ মেনে নেওয়া যায় না। 
এদিকে, মহিলা ওয়ার্ডে একজন পুরুষকে দায়িত্ব দিয়ে কর্তৃপক্ষ দায়িত্বহীনতার পরিচয় দিয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। তবে খুলনা মেডিকেল কলেজ (খুমেক) হাসপাতালে পরিচালক ডা: মুন্সী মো. রেজা সেকেন্দার বলেন, অভিযোগ ওঠার পর নজরুলকে চাকরি থেকে বরখাস্ত করা হয়েছে। এছাড়া মহিলা ওয়ার্ডে পুরুষরা কেন দায়িত্বে ছিল বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

উপরে