ঢাকা, রবিবার, ৭ জুন, ২০২০
আপডেট : ২১ জানুয়ারি, ২০২০ ১৫:২১

ই-পাসপোর্ট নিয়ে প্রবাসী ও শিক্ষার্থীদের জন্য সুসংবাদ

নিজস্ব প্রতিবেদক
ই-পাসপোর্ট নিয়ে প্রবাসী ও শিক্ষার্থীদের জন্য সুসংবাদ


আগামী বুধবার (২২ জানুয়ারি) চালু হচ্ছে বহুল প্রতীক্ষিত ইলেকট্রনিক পাসপোর্ট (ই-পাসপোর্ট)। সেদিন রাজধানীর শেরেবাংলা নগরে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আধুনিক প্রযুক্তিনির্ভর ই-পাসপোর্টের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করবেন।
রোববার (১৯ জানুয়ারি) সচিবালয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে ‘ই-পাসপোর্ট ভবন ও ই-পাসপোর্ট কার্যক্রম উদ্বোধন-সংক্রান্ত’ এক প্রেস ব্রিফিংয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল এ তথ্য জানান।
প্রবাসী শ্রমিক ও শিক্ষার্থীদের কম টাকায় ই-পাসপোর্ট দেবে সরকার। বাংলাদেশের একজন নাগরিকের বৈধ পাসপোর্ট করার ক্ষেত্রে নির্ধারিত ফি-এর টাকার পরিমাণ এতদিন সবার জন্য সমান থাকলেও এবারই প্রথম বিদেশে কর্মরত শ্রমিক ও শিক্ষার্থীদের জন্য অপেক্ষাকৃত কম টাকায় পাসপোর্ট পাওয়ার সুযোগ দিচ্ছে সরকার।
সচিবালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে সুরক্ষা সেবা বিভাগের সচিব মো. শহীদুজ্জামান বলেন, এবারই প্রথমবারের মতো প্রবাসী শ্রমিক ও শিক্ষার্থীদের জন্য অপেক্ষাকৃত কম টাকায় পাসপোর্ট করার সুযোগ দেয়া হচ্ছে।
তিনি বলেন, এতদিন একজন বড় ব্যবসায়ী যে টাকায় পাসপোর্ট করতেন গরিব মানুষও সমপরিমাণ টাকা ফি বাবদ জমা দিতেন। তবে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনায় প্রবাসী শ্রমিক ও শিক্ষার্থীদের জন্য কম টাকায় পাসপোর্ট করার ব্যবস্থা করা হচ্ছে।
কোন ই-পাসপোর্টের ফি কত?
৪৮ ও ৬৪ পৃষ্ঠার দুই ধরনের পাসপোর্ট প্রদান করা হবে। ৫ বছর ও ১০ বছর মেয়াদী পাসপোর্টে সাধারণ (১৫ দিন), জরুরি (৭ দিন) ও অতি জরুরি (২ দিন) ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। ৪৮ পৃষ্ঠার ৫ বছর মেয়াদী সাধারণ পাসপোর্টের ফি ৩৫০০ টাকা, জরুরি ৫ হাজার ৫০০ টাকা এবং অতি জরুরি বাবদ সাড়ে ৭ হাজার টাকা ফি দিতে হবে। এছাড়া ৪৮ পৃষ্ঠার ১০ বছর মেয়াদের ক্ষেত্রে সাধারণ, জরুরি ও অতি জরুরি ফি যথাক্রমে ৫ হাজার, ৭ হাজার ও ৯ হাজার টাকা।
একইভাবে ৬৪ পৃষ্ঠার ৫ বছর মেয়াদী সাধারণ পাসপোর্টের ক্ষেত্রে ৫ হাজার ৫০০ টাকা, জরুরি ৭ হাজার ৫০০ এবং অতি জরুরি বাবদ ১০ হাজার ৫০০ টাকা ফি নির্ধারণ করা হয়েছে। আর ৬৪ পৃষ্ঠার ১০ বছর মেয়াদের ক্ষেত্রে সাধারণ, জরুরি ও অতি জরুরি ফি যথাক্রমে ৭ হাজার, ৯ হাজার ও ১২ হাজার টাকা।
প্রবাসী শ্রমিক ও শিক্ষার্থীদের জন্য এ ফি অন্যান্যদের চেয়ে কম হবে। তবে কত টাকা কমবে তাৎক্ষণিকভাবে সেটা জানাতে পারেননি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের (জননিরাপত্তা) সিনিয়র সচিব মোস্তাফা কামাল উদ্দিন।

 

উপরে